Cvoice24.com

বাপ-ছেলের চোরাই সিএনজির ব্যবসা, বাপের পর ছেলে আটক

সিভয়েস প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৭:১৫, ৩ জুলাই ২০২২
বাপ-ছেলের চোরাই সিএনজির ব্যবসা, বাপের পর ছেলে আটক

চট্টগ্রামের বিভিন্ন জায়গা থেকে বাবা ও ছেলে মিলে সিএনজি অটোরিকশা চুরি করে এনে নিজস্ব গ্যারেজে রাখতো। এ ঘটনায় গত দুই মাস আগে বাবা বদিউল আলম গ্রেপ্তার হলে তার অবর্তমানে ছেলে ইফতেখার হাসান (১৮) এই চোরাই সিএনজির ব্যবসা পরিচালনা করছিল। তবে শেষ রক্ষা হলো না তারও, সেও ধরা পরলো র‌্যাবের হাতে।

শনিবার (২ জুলাই) দুপুর আড়াইটার দিকে উপজেলার মুহুরীহাট বটতল হযরত মোমেন শাহ সিএনজি গ্যারেজ থেকে তাকে আটক করে র‌্যাব। আজ রোববার তাকে আটকের বিষয়টি জানিয়েছেন র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. নুরুল আবছার।

আটককৃত ইফতেখার ওই উপজেলার মহুরীহাট বটতল এলাকার বদিউল আলমের ছেলে।

র‌্যাব জানায়, হাটহাজারীসহ আশেপাশের বিভিন্ন এলাকা থেকে সিএনজি চুরির অভিযোগ আসতে থাকে। অভিযোগের ভিত্তিতে চোরাই সিএনজি উদ্ধার ও জড়িতদের আটকের অভিযান চালায় র‌্যাব। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গতকাল শনিবার দুপুরে মহুরীহাট বটতল এলাকায় অভিযান চালিয়ে ইফতেখার হাসানকে আটক করা হয়। আসামির স্বীকারোক্তি ও তার দেখানো মতে ওই গ্যারেজ থেকে চোরাই ও রেজিস্ট্রেশন নম্বরবিহীন ৫টি সিএনজি উদ্ধার করা হয়। সিএনজিগুলোর আনুমানিক মূল্য ৩০ লাখ টাকা। এর দুই মাস আগে একই অপরাধে গ্রেপ্তার হয়ে বর্তমানে জেল হাজতে আছেন বদিউল আলম| বাবা গ্রেপ্তারের পর থেকে ছেলেই এ চোরাই সিএনজির ব্যবসা পরিচালনা করে আসছিল।

র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. নুরুল আবছার বলেন, একই অপরাধে দুই মাস আগে তার বাবাকেও গ্রেপ্তার করেছিল আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এবার ছেলেকেও আটক করা হয়েছে। আসামিকে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

-সিভয়েস/এমএম/এআর

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়