Cvoice24.com

মেয়রকে অনৈতিক প্রস্তাব, বরখাস্ত সীতাকুণ্ডের কাউন্সিলর জসিম

সীতাকুণ্ড প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৯:৩০, ১৮ মে ২০২২
মেয়রকে অনৈতিক প্রস্তাব, বরখাস্ত সীতাকুণ্ডের কাউন্সিলর জসিম

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড পৌরসভা ২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর বদিউল আলম জসিমকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করেছে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়।মঙ্গলবার স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি হয়েছে।

বুধবার স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব মোহাম্মদ ফারুক হোসেন স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপন ও আদেশ পৌরসভা কার্যালয়ে এসে পৌঁছেছে। এছাড়া পৃথক একটি আদেশে কেন তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবেনা তারও জবাব দিতে বলা হয়েছে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে।

এর আগে গত ১৩ এপ্রিল পৌরসভার জরুরি সভায় কাউন্সিলর জসিমকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেওয়ার পাশাপাশি তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে মন্ত্রণালয়ে চিঠি দেয় পৌর কর্তপক্ষ। পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত তার স্থলে দায়িত্ব দেওয়া হয় সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলর আনোয়ারা বেগমকে।

মন্ত্রণালয়ের প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে, সীতাকুণ্ড পৌরসভায় গত ১২ এপ্রিল চলতি বছরের হাটবাজার ইজারার ওয়ার্ক অর্ডার নিয়ে অশোভন ও উদ্ধত্যপূর্ণ আচরণ করাসহ পৌর মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা বদিউল আলমকে পেশিশক্তির ভয়ভীতি প্রর্দশন করেন কাউন্সিল বদিউল আলম জসিম। শিষ্টাচার বহির্ভূত অসদাচরণ এবং ক্ষমতার অপব্যবহার করার কারণে স্থানীয় সরকার পৌরসভা আইন ২০০৯ ধারা ৩১(১) মোতাবেক সাময়িকভাবে কাউন্সিলরকে বরখাস্ত করা হয়।

কাউন্সিলর বদিউল আলম জসিম বলেন, মেয়রের সাথে আমার ছোট-খাট একটা বিষয় নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয়েছে। এটা তেমন কিছুনা। আমাদের মধ্যে ভুল বোঝাবোঝির নিরসন হয়েছে। তবে তার বিরুদ্ধে গৃহীত ব্যবস্থা সম্পর্কে তিনি বলেন, সাত দিনের মধ্যে আমি জবাব দিব। এ ব্যাপারে মেয়র মহোদয় আমাকে সহায়তা করবেন।

উল্লেখ্য, পৌরসভার লাভজনককাজে অংশ নিতে সায় না দেওয়ায় গত ১২ এপ্রিল বিকেলে মেয়রকে গালমন্দ ও দুর্ব্যবহার করেন বদিউল আলম জসিম। এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়েও চিঠি পাঠানো হয়েছিল। 

পৌর মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা বদিউল আলম বলেছিলেন, পৌরসভার অধীনে হাট-বাজার, রাস্তা-ঘাট ইত্যাদি লাভজনক কর্মকাণ্ডে পৌরসভার সাথে সংশ্লিষ্ট কোন ব্যক্তি যেমন মেয়র, কাউন্সিলর বা অন্য কোন কর্মকর্তা বা কর্মচারী আইনত অংশ নিতে পারেনা। কিন্তু এরকম একটি অনৈতিক প্রস্তাব নিয়ে গত সোমবার কাউন্সিলর জসিম তার কাছে আসেন। তিনি সেই প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় অনেকের সামনে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও চরম দুর্ব্যবহার করেন। এই কারণে পরদিন মেয়রসহ বাকি সব কাউন্সিলররা জরুরি বৈঠক করে কাউন্সিলর জসিমকে দায়িত্ব থেকে অব্যাহতির সিদ্ধান্ত নেন। এছাড়া তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ে চিঠি দেওয়া হয়।

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়