Cvoice24.com

৯৯৯— এ কল পেয়ে সাগরে দিকভ্রান্ত স্পিডবোট থেকে পাঁচ যাত্রীকে উদ্ধার

সিভয়েস প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৫:৩৬, ৭ জুন ২০২১
৯৯৯— এ কল পেয়ে সাগরে দিকভ্রান্ত স্পিডবোট থেকে পাঁচ যাত্রীকে উদ্ধার

রবিবার ( ৬জুন) সকাল ৮টায় সন্দ্বীপ থেকে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের কুমিরার উদ্দেশ্যে স্পিডবোটে করে রওনা করেন পাঁচ যাত্রী। সাগর পথে ৪০ কিলোমিটারের এ যাত্রাপথ এমনে স্বাভাবিক হলেও এদিন তা ছিল কঠিন। স্পিডবোটটি যখন সন্দ্বীপ থেকে রওনা হয়েছিলেন তখন আবহাওয়া স্বাভাবিক থাকলেও কিছুদূর যাবার পর হঠাৎ করে আবহাওয়ার রূপ পাল্টাত থাকে। বাতাসের বেগ বাড়তে শুরু করে, সাথে উত্তাল হতে থাকে সাগরের ঢেউ। কিছুক্ষনের মধ্যেই সেই বাতাস রূপ নেয় ঝড়ের। সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে বাড়তে থাকে ঝড়ের ভয়াবহতা। 

প্রচণ্ড ঝড়ের মধ্যে স্পিডবোট চালক প্রাণপনে স্পিডবোটের নিয়ন্ত্রন ধরে রাখতে চেষ্টা করে যাচ্ছিলেন। কিন্তু এক পর্যায়ে তিনি আর নিয়ন্ত্রণ ধরে রাখতে পারছিলেন না। ফলে প্রচণ্ড ঝড়ের কবলে পড়ে উত্তাল ঢেউয়ের তোড়ে স্পিডবোটটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সাগরের বুকে এদিক ওদিক ভাসতে থাকে। এর মধ্যেও স্পিডবোট চালক প্রাণপন চেষ্টা করে যাচ্ছিলেন যাতে কোনোভাব স্পিডবোট ডুবে না যায়। 

এভাবে প্রবল ঝড়ের সাথে লড়াই করে কেটে যায় দীর্ঘ সময়। তারপর এক পর্যায়ে ঝড়ের বেগ কমতে থাকে। ঝড় যখন পুরোপুরি থেকে যায় তখন তারা বুঝতে পারছিলেন না যে তারা কোথায় আছেন। কিছুক্ষণ এদিক সেদিক ঘোরাঘুরি করে যখন তারা দিক ঠিক করতে পারছিলেন না তখন তারা আবার ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে পড়েন।

এভাবে চলতে চলতে প্রায় সকাল সাড়ে ৯টার দিকে স্পিডবোটে থাকা মাহমুদুল নামের এক ব্যক্তি ৯৯৯ নম্বরে কল করে তাদের বিপদের কথা জানান এবং দ্রুত তাদেরকে উদ্ধার করতে অনুরোধ করেন। ৯৯৯ অপারেটর সাথে সাথে বিষয়টি কোস্টগার্ড সদর দপ্তরের নিয়ন্ত্রণ কক্ষে এবং চট্টগ্রাম কোস্টগার্ডের নিয়ন্ত্রণ কক্ষে জানান এবং ভিকটিমদের সাগর থেকে উদ্ধার করতে দ্রুত টিম পাঠাতে অনুরোধ করে। 

৯৯৯ এ তথ্য পেয়ে সন্দ্বীপ কোস্টগার্ডের একটি উদ্ধারকারী দল তাৎক্ষনিক তাদের উদ্ধার করতে রওনা হয়ে যায়। দলটি স্পিডবোটের প্রাথমিক গতিপথ, যাত্রার সময়, ঝড়ের প্রকৃতি ও সময়, ইত্যাদি বিবেচনায় নিয়ে সম্ভাব্য সকল দিকে খুঁজতে থাকে। বিভিন্ন দিকে খুঁজতে খুঁজতে একপর্যায়ে তারা দিকভ্রান্ত স্পিডবোটটিকে সনাক্ত করতে সমর্থ হয়। তারপর তাদেরকে পথ দেখিয়ে নিরাপদে উপকূলে নিয়ে আসে। চালক এবং যাত্রী সকলেই সুস্থ আছেন বলে জানিয়েছেন কোস্টগার্ড সন্দ্বীপ স্টেশনের কর্মকর্তা শফীউল্লাহ। 

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়