Cvoice24.com

‘চেয়ার টানাটানি’ করে ১ বছরের ইনক্রিমেন্ট বন্ধ শিক্ষাবোর্ডের ৫ জনের

সিভয়েস প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৯:৫৮, ২৮ জুন ২০২২
‘চেয়ার টানাটানি’ করে ১ বছরের ইনক্রিমেন্ট বন্ধ শিক্ষাবোর্ডের ৫ জনের

চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ড।

দুই মাস আগে চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডের ইফতার পার্টিতে ‘চেয়ার টানাটানি’ করে এবার ইনক্রিমেন্ট হারিয়েছেন ৫ কর্মকর্তা-কর্মচারী। দোষী সাব্যস্ত হওয়ায় আগামী এক বছরের জন্য তাদের ইনক্রিমেন্ট (বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি) স্থগিত করা হয়েছে।   

সোমবার (২৭ জুন) শিক্ষাবোর্ডের সচিব অধ্যাপক আব্দুল আলীমের সই করা এক চিঠিতে এ তথ্য জানা গেছে।

পাঁচ কর্মকর্তা-কর্মচারী হলেন—বোর্ডের স্টেনোগ্রাফার মো. নাসির উদ্দিন, সহকারী হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা মো. ওসমান গণি, অফিস সহকারী আইউব আলী, মো. জাহেদ হোসেন এবং সহকারী প্রোগ্রামার আবুল হাসনাত মো. রাজু আহমেদ।

চিঠিতে বলা হয়েছে, সরকারি কর্মচারী (শৃঙ্খলা ও আপীল) বিধিমালা, ২০১৮ এর ৩ (খ) বিধি অনুযায়ী অসদাচরণের অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করে অভিযোগের গুরুত্ব ও প্রাসঙ্গিক সকল বিষয় বিবেচনায় একই বিধিমালার বিধি ৪ (২) (খ) বিধি মোতাবেক ২০২২ সালের বার্ষিক বেতন বৃদ্ধি এক বছরের জন্য স্থগিত করা হল। একইসাথে সাময়িক বরখাস্ত ও কারণ দর্শানোর নোটিশের আদেশ প্রত্যাহার করা হল।

এর আগে গত ২৬ এপ্রিল শিক্ষাবোর্ডে আয়োজিত ইফতার ও দোয়া মাহফিলে ইফতারের আগ মূহুর্তে চেয়ারে বসা নিয়ে সহকারী প্রোগ্রামার আবুল হাসনাত মো. রাজু আহমেদের সঙ্গে স্টেনোগ্রাফার মো. নাসির উদ্দিনের তর্কাতর্কি হয়। তার রেশ ধরেই সহকারী হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা মো. ওসমান গণি চিৎকার চেঁচামেচি ও মারমুখী আচরণ করেন। এরপরে বাকি দুই কর্মকর্তাও একই বিবাদে জড়িয়ে পড়েন। আর তাতেই শিক্ষাবোর্ডের সকল কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে বোর্ডের এই পাঁচ কর্মকর্তার হট্টগোল বেধে যায়। এ ঘটনার জেরে দুই কর্মকর্তাকে সাময়িক বরখাস্ত ও তিন কর্মকর্তাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেওয়া হয়ে। তদন্ত প্রতিবেদনে অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বিধি মোতাবেক শাস্তির মুখোমুখি হয়েছেন বোর্ডের এ পাঁচ কর্মকর্তা ও কর্মচারী।

সিভয়েস/এসআর

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়