image

আজ, বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০ ,


ওরা ধর্ষক, আমরা দর্শক!

ওরা ধর্ষক, আমরা দর্শক!

মফিজুল ইসলাম চৌধুরী বাবলু, লেখক ও সাংবাদিক।

ডিসকভারি চ্যানেলে বাঘ যখন তার হিংস্র থাবায় শিকারীকে ছিন্নবিচ্ছিন্ন করে তাকে ভক্ষণ করে তখন আমরা শিকার হওয়া পশুটির জন্য সামান্য অনুশোচনা করলেও মজা নেয়ার জন্যই মূলত দৃশ্যটা দেখে থাকি। আমাদের দেশের ধর্ষক ও তার সহযোগিদের অবস্থাও এখন এমন পর্যায়ে চলে গেছে। যেন পুরো দেশটায় ডিসকভারি চ্যানেলে রুপান্তরিত। 

একটি মেয়েকে ধর্ষণ শুধু একজন করছে না, এ ধর্ষণকাণ্ডে জড়িত যেন একেকটা গ্যাং। একজন ধর্ষণ করলে যেন আর বাকিরা ডিসকভারি চ্যানেল দেখার মত মজা নেয়। কি নির্লজ্জ অবস্থা, আমরা কোথায় গিয়ে পৌঁছেছি, কোথায় গিয়ে পৌঁছেছে আমাদের বিবেক! 

image style="text-align:justify">এছাড়াও ধর্ষণের ঘটনা এমন পর্যায়ে পৌঁছে গেছে যে এখন সিনেমা হলে গিয়ে বাংলা সিনেমার ধর্ষণকাণ্ড দেখার দরকার নেই, টিভি খুললেই, পত্রিকা খুললেই, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ঢুকলেই আপনি দেখতে পাবেন ধর্ষণকাণ্ডের সংবাদ বা সচিত্র ভিডিও। এ যেন সিনেমার নাম ‘ওরা ধর্ষক’ আর আমরা সাধারণ মানুষ এ সিনেমার নীরব দর্শক। 

দেখা যায়, হাজারো ধর্ষণের ঘটনার মধ্যে যে ধর্ষণ ঘটনাটি নিয়ে একটু শোরগোল হয় এ ঘটনায় জড়িত কয়েকজনকে গ্রেফতার করে কোনরকম পাবলিক সেন্টিমেন্ট নিয়ন্ত্রণে আনতে পারলেই যেন রাষ্ট্রযন্ত্রের দায়িত্ব শেষ। 

ধর্ষণ প্রতিরোধে এ লোক দেখানো দায়িত্ব পালন মানেই হচ্ছে, রাষ্ট্রযন্ত্রের অপরিপক্কতা, দেউলিয়ত্ব। ঘুনে ধরা সমাজের ঘুন রাষ্ট্রযন্ত্রে গিয়ে বিকল হওয়ার পথে আমরা। 

প্রশাসনের এ রকম আচরণ মানে আমাদের ধরে নিতে হবে ‘বিকল’ হয়ে গেছে আমাদের রাষ্ট্রযন্ত্র। যে দেশে কোনো নারী ঘরের বাইরে গেলে সর্বস্ব মর্যাদা নিয়ে সেই নারী ঘরে ফিরতে পারবে কিনা সেটা নিয়শ্চয়তা নেই, সেই দেশের প্রশাসনের কার্যকারিতা কি থাকতে পারে? সে দেশের প্রশাসন বা রাষ্ট্রযন্ত্রের তার নাগরিকদের প্রতি কোন দায়িত্ববোধ আছে বলে কেউ মনে করলে কি ভুল করবে না? 

রাষ্ট্রযন্ত্রের কারিগররা রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তায় থাকে। তাই তাদের মা-বোনদের মর্যাদা নিয়ে তাদের কোন চিন্তা নেই বলে কি তারা প্রতিদিন শত শত ধর্ষণের ঘটনা জেনে-দেখেও ঘুমের ভান করে থাকবে। 

তাদের এ ঘুমিয়ে থাকা কি, ‘কুম্ভকর্ণের সুখনিদ্রা’? 

রাষ্ট্রযন্ত্রের কারিগরদের বলছি, ভেঙ্গে ফেলুন এ সুখনিদ্রা। আপনাদের রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তার শিকল ভেঙ্গে ধর্ষকরা যখন আপনাদের মা-বোনদের দিকে নজর দিবে তখন হায়-হুতাশ করা ছাড়া আর কোন পথ থাকবে না। 

বিষয়টি যেভাবে নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে এখনই আপনাদের সুখ-নিদ্রা ভাঙার সময়। জেগে উঠুন আমার মা-বোনদের মর্যাদা রক্ষায়, সময় এখনি পদক্ষেপ নেয়ার। 

শুধু কয়েকজনকে গ্রেফতার নয়, কঠোর আইন প্রয়োগের মাধ্যমে ধর্ষণ প্রতিরোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণ করুণ। মাদক, ধর্ষণ ও দুর্নীতিমুক্ত একটি সমাজ প্রতিষ্ঠা করুন, ভবিষ্যত প্রজন্ম সুশিক্ষায় গড়ে উঠতে একটি কার্যকর রাষ্ট্রযন্ত্র তৈরি করতে সচেষ্ট হোন। আপনাদের কাছে এটাই আমাদের মত সাধারণ মানুষের প্রত্যাশা।

-লেখক ও সাংবাদিক

আরও পড়ুন

আওয়ামী লীগের প্রতিপক্ষ আওয়ামী লীগ!

৫ জানুয়ারির নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর সারা বাংলাদেশে একাধারে বিস্তারিত

একজন পুলিশ কনস্টেবল নেকবারের জন্য সহকর্মীর শোকগাথা  

পরের কারণে স্বার্থ দিয়া বলি এ জীবন মন সকলি দাও। তার মত সুখ কোথাও কি বিস্তারিত

করোনা-আইসিইউ-শিল্পপতির মৃত্যু!

পানিভর্তি ড্রাম কিংবা পুকুরে নাক মুখ চেপে ধরলে যেমন হয় ঠিক সেই অবস্থা। অথবা বিস্তারিত

এক কোটি মানুষ বাঁচাতে পারে ১৬ কোটি মানুষকে!

ফেসবুকে ইতালির প্রধানমন্ত্রী জিউসেপ কোঁতের কান্নার ছবিটি ভাইরাল হতে বিস্তারিত

ফাল্গুন চৈত্রের অপূর্ব মিলনে বাঙালীর বসন্ত

সহসা খুলিয়া গেল দ্বার আজিকার বসন্ত প্রভাতখানি দাঁড়াল করিয়া নমস্কার:  বিস্তারিত

২৮ নং পাঠানটুলি ওয়ার্ড: নিজের জন্য কাউন্সিলর হতে চান না এড. টিপু শীল জয়দেব

২৮নং পাঠানটুলি ওয়ার্ডে কাউন্সিলর নির্বাচন করতে চান এড. টিপু শীল। তবে নিজের বিস্তারিত

মানসম্পন্ন প্রাথমিক শিক্ষা এবং আমাদের করণীয়

একটি শিশু বড় হয়ে কেমন হবে, শিশুটি কি রকম চরিত্রবান হবে, সে কতটুকু জাতীয় চেতনা বিস্তারিত

তরুণদের রক্ষায় বাড়াতে হবে তামাকজাত দ্রব্যের দাম ও কর 

উন্নত বিশ্বের দেশগুলোতে তামাকের বাঘা বাঘা কোম্পানি যখন নিজেদের অস্তিত্ব বিস্তারিত

ধূমপান থেকে কি রক্ষা পাবে নারীরা!

‘সেদিন সুদূর নয়-যে দিন ধরণী পুরুষের সাথে গাহিবে নারীরও জয়।’ কবি কাজী বিস্তারিত

সর্বশেষ

মারধর থেকে যুবক খুন আকবরশাহ'য়

তর্কাতর্কির জের ধরে নগরের আকবরশাহ'র বিজয়নগর এলাকায় ছুরিকাঘাতে রনি বিস্তারিত

বাবুনগরী মুতাওয়াল্লী ও মুফতি হাবিবুর রহমান মুহতামিম নির্বাচিত

ফটিকছড়িতে অবস্থিত দেশের ঐতিহ্যবাহী শতবর্ষী দ্বীনিশিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিস্তারিত

চবি শিক্ষক খান তৌহিদ ওসমানের ইন্তেকাল

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মৃত্তিকা বিজ্ঞান বিভাগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও বিস্তারিত

কম খরচে বৈদ্যুতিক অভাবনীয় আবিষ্কারে শরিফুল

একসময় বিদ্যুতের ব্যবহার মানুষকে বিস্মিত করেছিলো। এরপরে একে একে বিস্তারিত

সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত, এই ওয়েব সাইটের যেকোন লিখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনি