image

আজ, বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০


সরকার ৫০০ বছর ক্ষমতায় থাকলেও হেফাজতের আপত্তি নেই, তবে...

সরকার ৫০০ বছর ক্ষমতায় থাকলেও হেফাজতের আপত্তি নেই, তবে...

হেফাজতে ইসলামের নব নির্বাচিত আমির মাওলানা জুনায়েদ বাবুনগরী বলেছেন, 'হেফাজতে ইসলাম দেশবিরোধী যেমন নয়, তেমনি সরকারবিরোধীও নয়। বর্তমান সরকার ১০০ বছর বা ৫০০ বছর দেশ শাসন করলেও হেফাজতের আপত্তি নেই। কিন্তু ৯০ ভাগ মুসলিমের দেশে পবিত্র ইসলাম ধর্ম এবং মহানবী হযরত মুহাম্মদ (স.)-এর ইজ্জতের ওপর কোনো আঘাত এলে দেশ অচল করে দেয়া হবে। রাজনীতি করা হেফাজতের উদ্দেশ্য নয়। হেফাজতে ইসলামের মূল লক্ষ্য ইসলামের আদর্শ ও নবী-রাসূলের মর্যাদা রক্ষা করা।'

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমির নির্বাচিত হওয়ার পর প্রথম সোমবার (১৬ নভেম্বর) রাতে প্রথম কোন জনসমাবেশে এসে তিনি এসব কথা বলেন। কক্সবাজারের পুরোনো দ্বীনি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রামু চাকমারকুল আল-জামিয়া আল ইসলামীয়া দারুল উলূম মাদরাসার ইছ্লাহে মাহফিল ও অভিভাবক সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন হেফাজতের আমির। 

গত ১৫ অক্টোবর হেফাজতের একাংশের বর্জনের মধ্যে দিয়ে সংখ্যাগরিষ্টদের নিয়ে সম্মলনের মাধ্যমে আমির নির্বাচিত হন আল্লামা আহমদ শফীর সাথে মহাসচিবের দায়িত্ব পালন করে আসা জুনায়েদ বাবুনগরী। ৫ মে'র শাপলা চত্বর নিয়ে তিক্ত অভিজ্ঞতা রয়ছে এ আলেমের। তার নামে রয়েছে একাধিক মামলা। ছিলেন কারাগারেও। বিভিন্ন সময়ে আহমদ শফীর বাইরে গিয়ে সরকারের বিরুদ্ধে বক্তব্য বিবৃতিও দিতে দেখা গিয়েছিল জুনায়েদ বাবুনগরীকে। এনিয়ে হেফাজতে দুটি ধারা সৃষ্টি হয়। পরে এর প্রভাবে চরম বিরোধ সৃষ্টি হয় সংগঠনটিতে। 
অবশেষে ২ মাস আগে এক ছাত্র আন্দোলনের মাধ্যমে হেফাজতের আমৃত্যু আমিরকে হাটহাজারী মাদ্রাসার মহাপরিচালকের পদ ছাড়তে হয়। পাশপাশি তার পুত্র শিক্ষা পরিচালক আনাস মাদানীকে বহিস্কার করা হয়। এরপরের দিনই চিকিৎসার জন্য বের হন আহমদ শফী। পরের দিন সন্ধ্যায় ঢাকার একটি হাসপাতালে মারা যান দেশের শীর্ষ এ আলেম। এরপর থেকেই জুনায়েদ বাবুনগরী হাটহাজারী মাদ্রাসা ও হেফাজতের একক নেতা ও নিয়ন্ত্রক হিসেবে প্রতিষ্ঠা পান। 

কক্সবাজারের এ অনুষ্ঠানে মাওলানা জুনায়েদ বাবুনগরী আরও বলেন, 'মুসলিম উম্মাহর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রকারীদের রুখে দেয়ার সময় এখনই। আওয়ামী লীগ-বিএনপির লড়াই আমরা চাই না। কারণ আওয়ামী লীগ-বিএনপি একই পথের পথিক। রাজনীতি ভিন্ন হলেও এদের উদ্দেশ্য এক। ঈদের জামাত, জুমার নামাজ, বিয়ে-শাদিসহ বিভিন্ন অনুষ্ঠানাদিতে এরা পাশাপাশি থাকে। হেফাজতের লড়াই আস্তিক-নাস্তিকের মধ্যে।'

তিনি সরকার এবং প্রজাতন্ত্রের কর্মচারীদের উদ্দেশে বলেন, 'যা খুশি করেন, কিন্তু ইসলামকে মাইনাস করে নয়। কারণ বাংলার মুসলমানরা এমন জাতি, যে জাতি রক্তে সাগর ভাসায়।একমাত্র আল্লাহকে খুশি করার জন্য মুসলমানদের জীবন উৎসর্গ করতে হবে। মানুষের বড় নেয়ামত, সর্বোৎকৃষ্ট সংবিধান পবিত্র কোরআন চর্চা বেশি করে করতে হবে। পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ, পবিত্র কোরআন পাঠ এবং আল্লাহর অন্যান্য ইবাদতের মাধ্যমেই দুনিয়া ও আখেরাতে মুক্তি লাভ সম্ভব।’

কক্সবাজার জেলা কওমি মাদরাসার ঐক্য পরিষদের সভাপতি, ধাওনখালী মাদরাসার পরিচালক মাওলানা মোহাম্মদ মুসলিমের সভাপতিত্বে মাহফিলে বিশেষ মেহমান হিসেবে বয়ান করেন ঢাকা মারকাযুল ফিক্য়িল ইসলামী বসুন্ধরার মুহ্তামিম মুফতি আরশাদ রহমানী, আল্লামা জুনাইদ আল হাবীব।

রামু জামেয়াতুল উলুম মাদরাসার সিনিয়র শিক্ষক কাজী এরশাদ উল্লাহর সঞ্চালনায় বিকেল ৩টা থেকে পশ্চিম চাকমারকুল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে আয়োজিত বিশাল এ ইছ্লাহে মাহফিলে কক্সবাজার জেলা কওমি মাদরাসা ঐক্য পরিষদের মহাসচিব, রাজারকুল আজিজুল উলুম মাদরাসার মুহ্তামিম মোহছেন শরীফ, জোয়ারিয়ানালা এমদাদুল উলুম মাদরাসার সিনিয়র মুহাদ্দিস হাফেজ আবদুল হক, চাকমারকুল আল-জামিয়া আল ইসলামীয়া মাদরাসার নির্বাহী মুহ্তামিম সিরাজুল ইসলাম, ইনানী মাদরাসার পরিচালক মো. ইদ্রিস, লেদা ইবনে আব্বাস মাদরাসার পরিচালক ক্বারী মোহাম্মদ শাকের, চকরিয়া চিরিঙ্গা মাদরাসার পরিচালক আনোয়ারুল আলম, বোয়ালখালী মাদরাসার পরিচালক নুরুল হাকিম, রামু মোজাহেরুল উলুম মাদরাসার পরিচালক মোহাম্মদ হারুন, রামু জামেয়াতুল উলুম মাদরাসার মুহতামিম হাফেজ শামসুল হক, জোয়ারিয়ানালা মাদরাসার মুহাদ্দিস শামসুল হক, ধলিরছড়া মাছুয়াখালী মাদরাসার নির্বাহী মুহতামিম শাহেদ নুর, চাকমারকুল মাদরাসার মুহতামিম মুফতি কামাল হোসাইন, পোকখালী এমদাদুল উলুম মাদরাসার নায়েবে মুহতামিম আবু সাঈদ, মশরাফিয়া মাদরাসার সিনিয়র শিক্ষক নুরুল কবির হিলালী, চাকমারকুল মাদরাসার মুহাদ্দিস মুফতি ফিরোজ আহমদ প্রমুখ দেশবরেণ্য আলেমেদ্বীন বয়ান করেন।

এদিকে, হেফাজতের আমির নির্বাচিত হওয়ায় আল্লামা জুনাইদ বাবুনগরীকে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করেন চাকমারকুল আল-জামিয়া আল ইসলামীয়া মাদরাসাসহ আরও বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

আরও পড়ুন

আওয়ামী লীগের ধর্ম সম্পাদক হলেন কক্সবাজারের সিরাজুল মোস্তাফা

কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিরাজুল মোস্তফাকে দলের কেন্দ্রীয় বিস্তারিত

টেকনাফে ইয়াবা রেখে নদীতে ঝাঁপ দিল পাচারকারীরা

টেকনাফের শাহপুরী দ্বীপের জালিয়াপাড়া এলাকায় নাফ নদী থেকে ৭২ হাজার পিস বিস্তারিত

হেফাজতের আমীর হয়ে কক্সবাজারে বাবুনগরী

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের নতুন আমির  নির্বাচিত হওয়ার পর কক্সবাজার সফরে বিস্তারিত

নাফ নদীতে ইয়াবা ব্যবসায়ী 'বন্দুকযুদ্ধে' নিহত

কক্সবাজারের টেকনাফে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) সদস্যদের সঙ্গে বিস্তারিত

চকরিয়ায় রাখাইন যুবককে গলা কেটে হত্যার চেষ্টা

কক্সবাজারের চকরিয়ায় মংছিংথোইন (৩২) নামে এক রাখাইন যুবককে গলাকেটে হত্যার বিস্তারিত

পর্যটক নিয়ে ‘কেয়ারি সিন্দাবাদ’ সেন্টমার্টিন যাবে কাল

টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌপথে কাল শুক্রবার থেকে ফের জাহাজ চলাচল শুরু হবে। এর বিস্তারিত

প্রদীপের পক্ষ নেয়ায় রানা দাশগুপ্তের পদত্যাগ চান কাবেরী

কক্সবাজারে মেজর (অব.) সিনহা হত্যা মামলায় অভিযুক্ত বহিস্কৃত ওসি প্রদীপের বিস্তারিত

বক্স বাম্পারে লুকানো ইয়াবাসহ পিকআপ জব্দ

কক্সবাজারের টেকনাফে পিকআপের বক্স বাম্পারে লুকানো ১৬ হাজার ৮০০ পিস ইয়াবা বিস্তারিত

কক্সবাজারে হবে ১৯৮ কোটি টাকার শুটকি কারখানা

কক্সবাজারের খুরুশকুলে শুটকি কারখানা করতে ১৯৮ কোটি ৭৯ লাখ টাকার একটি বিস্তারিত

সর্বশেষ

কর্ণফুলীতে জাটকাসহ ট্রলার জব্দ

কর্ণফুলী নদীর পুরাতন ব্রিজঘাট এলাকায় হিমায়িত জাটকাসহ 'এমভি ডিজনি' বিস্তারিত

লোহাগাড়ায় শিকারির গুলিতে স্কুলছাত্র নিহত

শিকারির গুলিতে লোহাগাড়ায় মো. মারুফ (১৩) নামে এক স্কুলছাত্র নিহত বিস্তারিত

‘ফুটবল ঈশ্বর’ দিয়াগো ম্যারাডোনা আর নেই

বিশ্বের সর্বকালের অন্যতম সেরা ফুটবলার দিয়াগো ম্যারাডোনা আর নেই। বিস্তারিত

ধুলো নিয়ে সিডিএ-ওয়াসাকে তুলোধুনা

শীত মৌসুম উকিঝুঁকি দিতে না দিতেই নগরজুড়ে বেড়েছে ধুলার সমস্যা। ধুলার কারণে বিস্তারিত

সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত, এই ওয়েব সাইটের যেকোন লিখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ন বেআইনি

close image