Cvoice24.com

লোহাগাড়ায় সরকারি রাস্তা গিলে ‘প্রাসাদ’ তুলছেন ইউপি মেম্বার

লোহাগাড়া প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৮:১১, ১০ আগস্ট ২০২২
লোহাগাড়ায় সরকারি রাস্তা গিলে ‘প্রাসাদ’ তুলছেন ইউপি মেম্বার

চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় সড়ক দখল করে বাড়ি নির্মাণের অভিযোগ উঠেছে সদর ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য এনামুল হক বাবুলের বিরুদ্ধে। তিনি ওই ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য।

জানা গেছে, সম্প্রতি সুখছুড়ি কুল সড়কের মোস্তাকের বাড়ি থেকে কামাল কোম্পানির বাড়ি পর্যন্ত ২০২১-২০২২ অর্থ বছরে ইট দিয়ে হেরিং বোন্ড বন্ড (এইচবিবি) রাস্তা নির্মাণ করে। বাকি সড়কের কাজের আগেই বাড়ির পিলার তুলে সরকারি রাস্তার দখল পাকাপোক্ত করছেন তিনি।

বুধবার (১০ আগস্ট) সরেজমিনে দেখা যায়, সুখছুড়ি কুল সড়কটির ফ্লাট সলিং বরাবর সড়ক কেটে পাকা পিলার তৈরি করছেন ইউপি সদস্য এনামুল হক বাবুল। দখল পাকাপোক্ত করতে সড়ক কেটে তিনটি বড় বড় পাকা পিলার তুলেছেন তিনি। নির্মাণাধীন ভবনের জন্য আনা সরঞ্জাম রাখা হয়েছে সড়কজুড়ে।

এদিকে সরকারি ইমারত আইন অনুযায়ী রাস্তার পাশ থেকে অন্তত চার মিটার দূরত্বে স্থাপনা তৈরি করার কথা রয়েছে। জনপ্রতিনিধি হয়ে আইনের ব্যতয় ঘটিয়ে উল্টো সরকারি রাস্তা গিলে খাওয়ার ঘটনা  নিয়ে এলাকায় সমালোচনার ঝড় উঠেছে। তবে প্রভাবশালী হওয়ায় ভয়ে মুখ খুলতে নারাজ। স্থানীয়রা প্রশাসনের জরুরি হস্তক্ষেপ চেয়েছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ব্যক্তি বলেছেন, ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে সড়ক কেটে বাড়ি তৈরি করছেন তিনি। গ্রামীণ সড়কটি দিয়ে মাইক্রোবাস ও মিনিট্রাক চলাচল করে। বর্তমানে সড়ক কেটে বাড়ি তৈরির পিলার দেখে মনে হচ্ছে বড় গাড়ি আর চলবে না। মানুষ মারা গেলে লাশ বহন করে চলাচল করা কষ্ট সাধ্য হবে।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে ইউপি সদস্য এনামুল হকের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমার জায়গায় আমি বাড়ি করছি। অভিযোগ দেবে কে? 

লোহাগাড়া সদর ইউপি চেযারম্যান মো. নুরুচ্ছফা চৌধুরী বলেন, সড়ক বা সড়কের পাশ অংশ কেটে স্থাপনা তৈরি করা আইনত অপরাধ। সেটি ইউপি সদস্য হোক বা সাধারণ নাগরিক হোক। এব্যাপারে তিনি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।

লোহাগাড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শরীফ উল্যাহ বলেন, সড়ক দখল করে কোন মতে স্থাপনা তৈরি করা যাবে না। বিষয়টি দেখে আইনগত ব্যবস্থা নিচ্ছি।
 

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়