Cvoice24.com
corona-awareness

শততম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জয় পেল বাংলাদেশ

সিভেয়স ডেস্ক

প্রকাশিত: ২০:৩২, ২২ জুলাই ২০২১
শততম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জয় পেল বাংলাদেশ

হারারেতে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে নাঈম-সৌম্যর রেকর্ড জুটিতে ভর করে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথমটিতে ৮ উইকেটের বিশাল ব্যবধানে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে জয় পেল বাংলাদেশ। এটি ছিল বাংলাদেশের শততম টি-টোয়েন্টি ম্যাচ।

টসে জিতে আগে ব্যাট করে জিম্বাবুয়ে। ধুমধাড়াক্কা ব্যাটিংয়ে ১ ওভার বাকি থাকতেই গুড়িয়ে যায় স্বাগতিকদের ইনিংস।

এর পরও বাংলাদেশকে ১৫৩ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর ছুড়ে দেয় সিকান্দার রাজার দল। জিম্বাবুয়ে দলের বোলাররা কোনো সাফল্যই পায়নি ম্যাচে। দুটি আউটই হয়েছে রানআউটে। ৩১ রানে ৩ উইকেট নেন মুস্তাফিজু রহমান। ১৭ রানে দুটি নেন শরিফুল ইসলাম। মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিন ২ উইকেট নেন ২৩ রানে।

রান তাড়ায় লক্ষ্যে পৌঁছে যায়। জিম্বাবুয়ে বোলার দলকে ভালো শুরু এনে দেন দুই ওপেনার মোহাম্মদ নাঈম শেখ ও সৌম্য সরকার।

১৩.১ ওভারে গিয়ে উদ্বোধনী জুটি ভাঙে। ততক্ষণে বাংলাদেশের স্কোর ১০০ ছাড়িয়ে গেছে। এই শতরানের জুটিতে সৌম্যর অবদান কাঁটাকাঁটায় ৫০ রান। এটি বাংলাদেশের পক্ষে একটি রেকর্ডও।

উদ্বোধনী জুটিতে বাংলাদেশের আগের সর্বোচ্চ সংগ্রহ ছিল ৯২। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষেই গত বছর মার্চে এই জুটি গড়েছিলেন তামিম ইকবাল ও লিটন দাস।

এবার তাদের রেকর্ড ভাঙলেন নাঈম-সৌম্য। ৪৫ বলে ৫০ রানে ব্যাট করার সময় রানআউট হয়ে ফিরলেন সৌম্য। চার বাউন্ডারি ও ২ ছক্কায় এই ইনিংস সাজিয়েছেন সৌম্য।

অন্যদিকে ফিফটির দেখা পেয়েছেন নাঈম শেখও। ৪০ বলে করেছেন ফিফটি হাঁকান তিনি। সৌম্যর আউটের পর ব্যাট হাতে নামেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।

কিন্তু ঝুঁকিপূর্ণ একটি সিঙ্গেল নিতে গিয়ে রানআউটের শিকার হন। ক্রিজে পৌঁছার একটু আগে ব্লেসিং মুজারাবানির সরাসরি থ্রোতে স্টাম্প ভেঙে যায় মাহমুদউল্লাহর। এরপর নাঈমের সঙ্গী হন উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান নুরুল হাসান সোহান।

১৭ ওভার শেষে জয়ের লক্ষ্যে বাংলাদেশের প্রয়োজন পড়ে ২৭ রানের। অর্থাৎ ১৮ বলে দরকার ২৭ রান।আর ৭ বল বাকি থাকতেই তা পূরণ করে ফেলেন নাঈম-সোহান জুটি।

১৯তম ওভারের দ্বিতীয় বলে মুজারাবানির ফুলটস ডেলিভারিটি ফাইন লেগ দিয়ে ছক্কা হাঁকান সোহান।ওভারের পঞ্চম বলটি মিড-অফ দিয়ে সীমানার বাইরে পাঠিয়ে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ।

৫১ বলে ৬ বাউন্ডারিতে ৬৩ রান করে অপরাজিত থাকেন মোহাম্মদ নাঈম। ৮ বলে ১৬ রান করে নাঈমকে যোগ্য সঙ্গ দিয়ে মাঠ ছাড়েন সোহান।

বাংলাদেশের শততম ম্যাচ

টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশের পথচলা শুরু হয়েছিল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষেই, ২০০৬ সালে খুলনায়। সেই ম্যাচে ৪৩ রানে জিতেছিল বাংলাদেশ। বৃহস্পতিবার জিম্বাবুয়ের বিপক্ষেই এই সংস্করণে শততম ম্যাচে খেলতে নামে বাংলাদেশ।

ওয়ানডে ও টেস্টে নিজেদের ১০০তম ম্যাচ দারুণ জয়ে রাঙিয়েছিল বাংলাদেশ। শততম ওয়ানডে ছিল ২০০৪ সালে ভারতের বিপক্ষে। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামের গ্যালারি ঠাসা দর্শকের সামনে ১৫ রানের স্মরণীয় জয় এসেছিল সেদিন। শততম টেস্ট জয় ছিল ২০১৭ সালে, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে কলম্বোর পি সারা ওভালে। এবার শততম টি-টোয়েন্টি ম্যাচেও বিদেশের মাঠিতে জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে দারুণ জয় পেল বাংলাদেশ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

জিম্বাবুয়ে: ১৯ ওভারে ১৫২ (মাধেভেরে ২৩, মারুমানি ৭, চাকাভা ৪৩, মায়ার্স ৩৫, রাজা ০, মুসাকান্দা ৬, বার্ল ৪, জঙ্গুয়ে ১৮, মাসাকাদজা ৪*, এনগারাভা ০, মুজারাবানি ৮; সাইফ ৪-০-২৩-০, মুস্তাফিজ ৪-০-৩১-৩, সাকিব ৪-০-২৮-১, শরিফুল ৩-০-১৭-২, মেহেদি ১-০-১৮-০, মাহমুদউল্লাহ ১-০-১৪-০, সৌম্য ২-০-১৮-১)

বাংলাদেশ: ১৮.৫ ওভারে ১৫৩/২ (নাঈম ৬৩*, সৌম্য ৫০, মাহমুদউল্লাহ ১৫, সোহান ১৬*; মুজারাবানি ৩.৫-০-১৯-০, মাধেভেরে ৩-০-২৪-০, এনগারাভা ৪-০-৪৬-০, জঙ্গুয়ে ৩-০-২৮-০, রাজা ২-০-১৬-০, মাসাকাদজা ৩-০-২০-০)

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়