Cvoice24.com

পোল্যান্ডের জয়ে চাপ বাড়ল আর্জেন্টিনার 

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ২২:১৩, ২৬ নভেম্বর ২০২২
পোল্যান্ডের জয়ে চাপ বাড়ল আর্জেন্টিনার 

ছবি: সংগৃহীত

জিয়েলিনস্কি এবং রবার্ট লেওয়ানডস্কির গোলে ২-০ ব্যবধানে সৌদি আরবকে হারিয়ে সি গ্রুপের পয়েন্ট টেবিল শীর্ষে উঠলো পোল্যান্ড। দুই ম্যাচে তাদের সংগ্রহ ৪ পয়েন্ট। 

শনিবার দোহার এডুকেশন সিটি স্টেডিয়ামে মুখোমুখি হয়েছিল পোল্যান্ড ও সৌদি আরব। দুই দলের কাছেই ম্যাচটা যতটা গুরুত্বপূর্ণ ছিল, তার থেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ ছিল আর্জেন্টিনার কাছে। মেক্সিকোর বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগে মেসিরা তাকিয়ে ছিল পোল্যান্ড–সৌদি আরব ম্যাচের দিকে। পোল্যান্ডের জয় চাননি মেসিরা। কারণ পোল্যান্ড জিতলেই চাপে পড়ে যাবে আর্জেন্টিনা। আর মেসিদের মনোবাসনা পূর্ণ হলো না।

এদিকে ‘সি’ গ্রুপে এখন ৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে থাকলো পোল্যান্ড। ৩ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে সৌদি আরব এবং আগের ম্যাচ ড্র করার কারণে মেক্সিকোর পয়েন্ট ১। তারা তৃতীয় এবং শেষ দলটি আর্জেন্টিনা।

তাই দ্বিতীয় রাউন্ডে যেতে হলে মেক্সিকোর বিপক্ষে জিততেই হবে। ড্র করা কোনোভাবেই নিরাপদ নয় আর তাদের জন্য। অথচ, প্রথম ম্যাচে পোল্যান্ডের বিপক্ষে যেভাবে খেলেছিলো মেক্সিকানরা, সেটাই আর্জেন্টিনার জন্য বিপজ্জনক। মেক্সিকো গোলরক্ষক গুইয়ার্মো ওচোয়া রবার্ট লেওয়ানডস্কির পেনাল্টি শট ফিরিয়ে দিয়েছিলেন।

ম্যাচের শুরু থেকে দারুণ আধিপত্য বিস্তার করে খেলতে থাকে সৌদি আরব। একের পর এক আক্রমণে পোলিশ রক্ষণদুর্গ তছনছ করে দিতে থাকে। বেশ কয়েকবার গোলের দারুণ সুযোগও তৈরি করে তারা। কিন্তু শেষ মুহূর্তে সে সুযোগগুলো কাজে লাগাতে পারেনি তারা। বিশেষ করে পোল্যান্ডের গোলরক্ষক ওজিয়েক সিজিসনি সৌদি আরবের বেশ কয়েকটি আক্রমণ রুখে দেন।

১৪ মিনিটেই এগিয়ে যেতে পারতো সৌদি। মোহাম্মদ কানো সতীর্থের সঙ্গে বল দেওয়া-নেওয়া করে বক্সের মধ্যে নিয়ে গিয়ে শট নেন। কিন্তু সিজিসনি অসাধারণ দক্ষতায় বলটি রক্ষা করেন। এ সময় কিছুক্ষণ দু’দলের খেলোয়াড়রাই শারীরিক প্রতিদ্বন্দ্বীতায় মেতে ওঠে। প্রচুর ফাউল হয়। যে কারণে রেফারিকে ৮ মিনিটের মধ্যে চারবার হলুদ কার্ড বের করে দেখাতে হয়।

২৬ মিনিটে দারুণ এক সুযোগ পেয়েছিল পোল্যান্ড। জিয়েলনস্কি কর্নার কিক নিলে ভেসে আসা বলে হেড করেন বিয়েলিক। তবে সৌদি ডিফেন্ডার আল সেহরি সেটিকে জালে প্রবেশ করতে দেননি।

৩৯ মিনিটে গোল করেন জিয়েলিনস্কি। একটি প্রতি আক্রমণে বল নিয়ে দ্রুত সৌদির বক্সের মধ্যে প্রবেশ করেন রবার্ট লেওয়ানডস্কি। ডিফেন্ডারদের সঙ্গে কাটিয়ে শেষে বল দেন জিয়েলিনস্কিকে। দারুণ এক শটে তিনি বলটি সৌদির জালে প্রবেশ করান।

৪৪ মিনিটে পেনাল্টি পায় সৌদি আরব। আল সেহরিকে ফাউল করেন বিয়েলেক্স। ভিএআর দেখে পেনাল্টির নির্দেশ দেন রেফারি। স্পট কিক নিতে আসেন সালেম আল দাওসারি। কিন্তু গোলরক্ষক ওজিয়েক সিজিসনি বাম পাশে ঝাঁপিয়ে পড়ে বলটি ঠেকিয়ে দেন। ফিরতি বলে শট নেন আরেক সৌদি ফুটবলার। কিন্তু সেটিকেও অসাধারণ দক্ষতায় ফিরিয়ে দেন গোলরক্ষক ওজিয়েক সিজিসনি।

দ্বিতীয়ার্ধেও অসাধারণ খেলেছিল সৌদি আরব। কিন্তু তাদের ভালো খেলা কোনো কাজে আসেনি। বরং, এই অর্ধেও গোল হজম করতে হয়েছিলো তাদের। ম্যাচের ৮২তম মিনিটে গোল করেন রবার্ট লেওয়ানডস্কি। বিশ্বকাপে লেওয়ানডস্কির এটাই প্রথম গোল। গত আসরেও খেলেছিলেন তিনি। কিন্তু কোনো গোল করতে পারেননি। এবারও মেক্সিকোর বিপক্ষে গোল তো দুরে থাক, পেনাল্টি পর্যন্ত মিস করেছিলেন তিনি।

ম্যাচের ৫৬ এবং ৬০ মিনিটের মাথায় দুর্দান্ত দুটি সুযোগ পেয়েছিলেন সালেম আল দাওসারি। কিন্তু ৫৬তম মিনিটে তার দুর্দান্ত শটটি ঠেকিয়ে গোল পোল্যান্ড গোলরক্ষক এবং ৬০ মিনিটের মাথায় তার কাছ থেকে বল পেয়ে একদম গোলমুখ থেকে আল বিরাকান বলটিকে পোস্টের ওপারে পাঠিয়ে দেন।

Nagad

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়