Cvoice24.com

গণপিটুনি খেয়ে থানা হেফাজতে ৫ যুবক

সিভয়েস ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৩:২১, ৯ ডিসেম্বর ২০২৩
গণপিটুনি খেয়ে থানা হেফাজতে ৫ যুবক

গরু চুরির চেষ্টা করে পালাচ্ছিল ওরা ৫। ধাওয়া করে ধরে গণপিটুনি দিয়ে তাদের পুলিশের হাতে তুলে দিয়েছে এলাকাবাসী।  শনিবার (৯ ডিসেম্বর) ভোরে বোয়ালখালী উপজেলার আমুচিয়া ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে।

গণপিটুনিতে আহতরা হল পশ্চিম শাকপুরা ৬ নম্বর ওয়ার্ডের জাফর আহমদের ছেলে মো. জাবেদ হোসেন (৩২), ৩ নম্বর ওয়ার্ডের মো. লেদু মাঝির ছেলে মো. লিটন (৩১), শাকপুরা ইউনিয়নের ঘোষখীল গ্রামের মো. জামালের ছেলে ইমরান হোসেন বিজয় (২০) ও চৌকিদার মো. শহীদ হাসানের ছেলে ইবনূর হাসান (২১) এবং পশ্চিম গোমদণ্ডীর মো. ইউনুচের ছেলে মো. আসাদ (২৫)।

স্থানীয়রা বলেন, ভোররাত ৩টার দিকে জ্যৈষ্ঠপুরা এলাকায় এক গোয়াল ঘরের তালা কেটে চোরের দল ভেতরে প্রবেশের চেষ্টা চালায়।

এ সময় বাড়ির লোকজন টের পেয়ে বেরিয়ে এসে চিৎকার করেন। লোকজন এগিয়ে এলে চোরের দল দুটি সিএনজি অটোরিকশাযোগে পালিয়ে আমুচিয়া গুচ্ছগ্রামের দিকে চলে যায়। খবর পেয়ে ওই এলাকার লোকজন তাদের ধাওয়া দিয়ে একটি সিএনজি অটোরিকশার গতিরোধ করে ৫ যুবককে গণপিটুনি দেন। আরেকটি সিএনজি অটোরিকশা পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিক্যাল অফিসার সঞ্জয় সেন জানান, গণপিটুনিতে আহত ৫ যুবককে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

বোয়ালখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আছহাব উদ্দিন বলেন, ‘আহত ৫ যুবককে পুলিশ আটক করেছে। তাদের ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

সর্বশেষ