Cvoice24.com

১৫০০ টাকার এলাচ ৩০০০ খাতুনগঞ্জে

সিভয়েস২৪ প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৬:৫৪, ৪ মার্চ ২০২৪
১৫০০ টাকার এলাচ ৩০০০ খাতুনগঞ্জে

শুল্কসহ এলাচের দাম কেজিপ্রতি সর্বোচ্চ ১৫০০ টাকা। কিন্তু পাইকারি ব্যবসারীরাই বিক্রি করছেন ৩ হাজার টাকা কেজি দরে। আমদানি দামের চেয়ে দ্বিগুণ দামে এলাচ বিক্রির ‘অপরাধ’ ধরা পড়েছে খাতুনগঞ্জে।

সোমবার (৪ মার্চ) দেশের অন্যতম বৃহৎ পাইকারি বাজার খাতুনগঞ্জে রমজানকে সামনে রেখে তৃতীয় দিনের মতো অভিযান চালানো হয়। অভিযানে নেতৃত্ব দেন জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট প্রতীক দত্ত। এ সময় উপস্থিত ছিলেন সহকারী কৃষি বিপণন কর্মকর্তা আবু বক্কর এবং কোতোয়ালী থানা পুলিশের সদস্যরা।

জানা গেছে, খাতুনগঞ্জে অতিরিক্ত দামে এলাচ বিক্রি, মূল্য তালিকা না থাকা, ক্রয়-বিক্রয় রশিদ না রাখাসহ বিভিন্ন অভিযোগে ৬ প্রতিষ্ঠানকে ৫১ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এতে মূল্য তালিকা না থাকা, ক্রয়-বিক্রয় রশিদ না রাখার অভিযোগে মদিনা ট্রেডার্সকে ১০ হাজার, আজমির ভান্ডারকে ৩ হাজার, ফারুক ট্রেডার্সকে ৩ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়া, সরাসরি ডিও/এসও বিক্রির দায়ে ভাই ভাই এন্টারপ্রাইজকে ১০ হাজার, দ্বীন এন্ড কোম্পানিকে ৫ হাজার এবং এলাচের বৃহত্তম আমদানিকারক মেসার্স আবু মোহাম্মদ এন্ড কোম্পানিকে আমদানি মূল্যের তুলনায় অতিরিক্ত মূল্যে এলাচ বিক্রির দায়ে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট প্রতীক দত্ত বলেন, বিভিন্ন আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানের এলসি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, শুল্কসহ এলাচের দাম হওয়ার কথা কেজিপ্রতি সর্বোচ্চ ১ হাজার ৫০০ টাকা। সেখানে পাইকারি বাজারে বিক্রি করা হচ্ছে ২ হাজার ৩০০ থেকে ৩ হাজার টাকায়। এছাড়াও বেশ কিছু মসলার দাম বেশি রাখছে ব্যবসায়ীরা। কেন দাম বাড়ানো হচ্ছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘বারবার হাতবদল বা ডিও/এসও বিক্রিও পণ্যের দাম বাড়তি হওয়ার একটি কারণ হতে পারে। আজ (সোমবার) সামান্য জরিমানা করা হয়েছে। এরপর আরও কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। পবিত্র রমজান মাসে চট্টগ্রামের বাজারকে কোনোভাবেই অস্থিতিশীল হতে দেয়া হবে না। এ ধরনের অভিযান সামনে আরও বাড়বে।’

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়