Cvoice24.com

চট্টগ্রামের রাজনীতিবিদরা কে কোথায় ঈদ করছেন

সিভয়েস২৪ প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১১:৫৮, ১০ এপ্রিল ২০২৪
চট্টগ্রামের রাজনীতিবিদরা কে কোথায় ঈদ করছেন

ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে সবাই কম-বেশি পরিবারের সান্নিধ্যে থাকতে চান। এর ব্যতিক্রম নন রাজনৈতিক নেতারাও। চট্টগ্রামের অধিকাংশ রাজনৈতিক নেতা নিজ নিজ বাড়িতে পরিবারের সঙ্গে ঈদ উদযাপন করবেন। আয়োজন রয়েছে নেতাকর্মীদের জন্যও।

শিক্ষামন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল ঈদ উদযাপন করবেন চট্টগ্রামে। নগরের জমিয়তুল ফালাহ জাতীয় মসজিদে নামাজ শেষে নগরের চশমা হিলে বাবা এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরীসহ স্বজনদের কবর জেয়ারত করবেন। এরপর বাসভবনে আত্মীয়স্বজন ও দলীয় নেতাকর্মীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন সেখানেই।

আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির অর্থ ও পরিকল্পনা বিষয়ক সম্পাদক এবং অর্থ প্রতিমন্ত্রী ওয়াসিকা আয়শা খান ঈদ উদযাপন করবেন লোহাগাড়ার শ্বশুর বাড়িতে। সকালে থেকে বিকেল পর্যন্ত সেখানে অবস্থান করবেন তিনি। বিকেলে পৈতৃক ভিটা আনোয়ারায় নেতা-কর্মীসহ সবার সঙ্গে কুশল বিনিময় করবেন।


চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র মো. রেজাউল করিম চৌধুরী নগরের বহদ্দারহাটের বাড়িতেই ঈদ করছেন। নগরের বহদ্দারহাট বাড়ির শাহী জামে মসজিদে ঈদের নামাজ আদায় শেষে তিনি বাড়িতে দলীয় নেতা-কর্মীসহ সর্বস্তরের মানুষের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। 

চন্দনাইশের কাঞ্চননগর নিজ বাড়িতে ঈদ করবেন শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মো. নজরুল ইসলাম চৌধুরী। স্থানীয নতুন জামে মসজিদে ঈদের নামাজ আদায়ের পর নির্বাচনী এলাকার লোকজনসহ আত্মীয়-স্বজনদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।

রেলপথ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি, সংসদ সদস্য এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী ঈদুল ফিতর উদযাপন করবেন রাউজানের গহিরায় নিজ বাড়িতে। ঈদের দিন সকালে গহিরা বক্স আলী চৌধুরী বাড়ি জামে মসজিদে ঈদের নামাজ আদায় করে বাড়িতে দলীয় নেতা-কর্মী, এলাকাবাসী, বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। সন্ধ্যায় নগরের বাসভবনে ফিরে সবার সঙ্গে ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও চট্টগ্রাম-১২ (পটিয়া) আসনের সংসদ সদস্য মোতাহেরুল ইসলাম চৌধুরী ঈদের নামাজ আদায় করবেন পটিয়া মডেল মসজিদে। ঈদের দিন ও ঈদের পরের দিন তিনি পৌরসভাস্থ নিজ বাড়িতে দলীয় নেতা-কর্মীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। রয়েছে আপ্যায়নের ব্যবস্থা।

সংসদ সদস্য সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ ঈদের দিন নগরের সার্সন রোডের বাসভবনে থেকে শহরে ঈদের নামাজ আদায় করবেন। শহরের বাসভবনে ও আনোয়ারায় তিনি নেতা-কর্মীদের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি, প্রবীণ রাজনীতিবিদ মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী ঈদের নামাজ আদায় করবেন নগরের দামপাড়ায় বাড়ির পাশের মসজিদে। নামাজের পর মা-বাবা ও নিকটাত্মীয়দের কবর জেয়ারত শেষে বাসায় নেতা-কর্মীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। অতিথিদের কাচ্চি বিরিয়ানি দিয়ে আপ্যায়ন করা হবে।  

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের সাবেক মেয়র ও নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে ঈদের নামাজ আদায় করবেন। এরপর তিনি কদম মোবারক মসজিদের পাশে পিতাসহ আত্মীয়-স্বজনের কবর জেয়ারত করবেন। আত্মীয়-স্বজনসহ বাসায় আগতদের জন্য আপ্যায়নের ব্যবস্থা থাকছে।

বিএনপির নেতারা কে কোথায়

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী নগরের কাট্টলীতে ঈদ করবেন। নাজির বাড়ি জামে মসজিদে ঈদের জামাত আদায় করেদলীয় নেতাকর্মীদের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন। ঈদের পরের দিন নগরের মেহেদীবাগের বাসায় তিনি নেতাকর্মী ও আত্মীয় স্বজনদের সাথে কুশল বিনিময় করবেন। 

জমিয়তুল ফালাহ জামে মসজিদে ঈদের নামাজ আদায় করবেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান। এরপর ভিআইপি টাওয়ারের বাসায় নেতাকর্মীদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।  

দলের ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দিন ঈদের জামাত আদায় করবেন জমিয়তুল ফালাহ জামে মসজিদে। এরপর তিনি হাটহাজারীর গ্রামের বাড়িতে মা-বাবার করব জেয়ারত করতে যাবেন। সেখানে আত্মীয় স্বজনদের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় শেষে বিকেলে চট্টেশ্বরী রোডের বাসায় নেতাকর্মীদের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।

কেন্দ্রীয় বিএনপির সদস্য মীর মোহাম্মদ হেলাল উদ্দিন ঈদের নামাজ পড়বেন হাটহাজারীর গ্রামের মসজিদে। ঈদের তিনদিন তিনি হাটহাজারীতে কাটাবেন। নেতাকর্মীদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন প্রথম দিন। পরের দুইদিন পৌরসভা, বিভিন্ন ওয়ার্ডে যাবেন।  

কেন্দ্রীয় বিএনপির বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীম ওমরাহ পালনে সৌদি আরব অবস্থান করছেন। সেখানেই তিনি ঈদের নামাজ আদায় করবেন। ঈদের পরের সপ্তাহে দেশে ফিরে তিনি নেতা-কর্মীদের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।

ওমরা পালনের জ‌ন্য চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেন সৌদি আরবে আছেন। সেখানে ঈদের নামাজ আদায় করবেন তিনি। ঈদের পরের দিনই তার দেশে ফেরার কথা রয়েছে।  

নগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আবুল হাশেম বক্কর জমিয়তুল ফালাহ জামে মসজিদে ঈদের নামাজ আদায় করবেন। পরে তিনি চৈতন্যগলি কবরস্থানে মা-বাবা ও ভাইয়ের কবর জেয়ারত করবেন। তিনি এনায়েত বাজার বাটালি রোডের বাসায় নেতা-কর্মীদের সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।  

জমিয়তুল ফালাহ মসজিদে ঈদের নামাজ আদায় করবেন নগর বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি ও দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবু সুফিয়ান। এরপর চান্দগাঁও এর বাসায় নেতা-কর্মীদের আপ্যায়ন ও ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।  

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়