Cvoice24.com
corona-awareness

চবির অসমাপ্ত পরীক্ষা হবে যে শর্তে

সিভয়েস প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ২২:৫৩, ৯ জুন ২০২১
চবির অসমাপ্ত পরীক্ষা হবে যে শর্তে

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) স্থগিত থাকা অসমাপ্ত পরীক্ষাগুলো অবশেষে সশরীরে নিচ্ছে কর্তৃপক্ষ। তবে আবাসিক হল না খোলার শর্তে পরীক্ষাগুলো নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। এ শর্তে  শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে লিখিত ও অনলাইনেও নেয়া হয়েছে সম্মতি। আজ বুধবার (৯ জুন) বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের ২০১৬-১৭ সেশনের ষষ্ঠ সেমিস্টারের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এছাড়া আগামীকাল বৃহস্পতিবার (১০ জুন) নৃবিজ্ঞান বিভাগের স্থগিত থাকা ২০১৫-১৬ সেশনের স্নাতক সম্মানের ফাইনাল পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

নৃবিজ্ঞান বিভাগের সভাপতি ড. খাদিজা মিতু সিভয়েসকে বলেন, গত ২ জুন আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি ও প্রো ভিসি কাছ থেকে অসমাপ্ত পরীক্ষা দ্রুততম সময়ে নেওয়ার চিঠি পেয়েছি। আমাদের প্রশ্নপত্রসহ সবকিছু প্রস্তুত আছে। এরআগে ফেব্রুয়ারিতে আমরা সশ্বরীরে পরীক্ষা নেওয়া শুরু করেছিলাম। তখন মাত্র তিনটা পরীক্ষা নিতে পেরেছিলাম। শিক্ষার্থীরা আবাসিক হল না খোলার লিখিত সম্মতি দিয়েছে বলেও জানান তিনি। 

এদিকে একইভাবে আরও বেশকিছু বিভাগ পরীক্ষার তারিখ ও রুটিন প্রকাশ করেছে। এরমধ্যে ইংরেজি বিভাগের ২০১৪-১৫ সেশনের চতুর্থ বর্ষের পরীক্ষা হবে ১৩ জুন থেকে। রাজনীতি বিজ্ঞান বিভাগ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ১৬ জুন থেকে এম.এস.এস পরীক্ষার নোটিশ দিয়েছে। অর্থনীতি বিভাগের মাস্টার্স ফাইনাল পরীক্ষা ২৮ জুন থেকে শুরু হবে। মার্কেটিং ২৬ তম ব্যাচের পরীক্ষা ২১ জুন থেকে শুরু হবে। প্রাণিবিজ্ঞান বিভাগ ২০ তারিখ থেকে শুরু করে বিভিন্ন বর্ষের মৌখিক, ব্যবহারিক ও তাত্ত্বিক পরীক্ষা নিবে। সংস্কৃত বিভাগসহ আরও কয়েকটি বিভাগের স্থগিত থাকা পরীক্ষা নেওয়া প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।

এদিকে আবাসিক হলের শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিন না দেয়া পর্যন্ত খোলা হবে না কোন হল। এছাড়া বন্ধ থাকবে শাটল ট্রেনও। তবে সশরীরে পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের জন্য বিকল্প যান নিয়ে কিছু ভাবেনি চবি কর্তৃপক্ষ। আগামী কোরবানি ঈদের পর ক্লাসগুলো চালু হতে পারে বলে জানান সংশ্লিষ্টরা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এস এম মনিরুল হাসান সিভয়েসকে বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয় একটি স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান। আমরা আদেশের জন্য অপেক্ষা করি না। তবে সরকারের নির্দেশে শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তাটাও দেখতে হয়। সেজন্য পরিস্থিতি বিবেচনা করে আমরা সিদ্ধান্তগুলো নিই। সরকারের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, শিক্ষা মন্ত্রাণালয় সায়েন্টিফিকভাবে সশরীরে অসমাপ্ত পরীক্ষা নিতে সুপারিশ দিয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘সরকারি সিদ্ধান্ত মোতাবেক আবাসিক শিক্ষার্থীদের প্রথমে টিকাদান নিশ্চিত করা হবে। পর্যায়ক্রমে কর্মকর্তা কর্মচারীসহ সবাইকে টিকা দান করা হবে। জুলাইয়ের শেষের দিকে বা কোরবানি ঈদের পরে ক্লাস চালু হতে পারে।’ 

ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার আরও বলেন, ‘শাটল ট্রেন বন্ধ থাকবে। অসমাপ্ত পরীক্ষাগুলো আগে চালু হোক। সংশ্লিষ্ট অনুষদের ডিন, বিভাগের সাথে আলোচনা করে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত হবে। সব বিভাগের জন্য দেওয়ার মতো আমাদের ততোটা বাস নেই।’

-সিভয়েস/এইচবি

Add

সর্বশেষ

পাঠকপ্রিয়